পিঠে বা কোমরে ব্যথা

পিঠে বা কোমরে ব্যাথা সব বয়সের মানুষের জন্যই সাধারণ একটি বিষয়, কিন্তু বেশিরভাগ ক্ষেত্রে কিছু সাধারণ নিয়ম মেনে বা ডাক্তারের শরণাপন্ন না হয়ে ফার্মেসি থেকে কেনা কিছু ওষুধ দিয়ে আপনি নিজেই এর চিকিৎসা করতে পারেন। ব্যথা নিরাময়ে কিছু পরামর্শ: ● ব্যথা কমানোর জন্য প্যারাসিটামল খান। ● প্রথমে বরফ দিন, তারপর সেক দিন। ঠাণ্ডা এবং গরম কমপ্রেশন প্যাক ব্যবহার করলেও ব্যথা কমতে পারে। এই প্যাক বড় ফার্মাসিতে কিনতে পাবেন। ● ফ্রোজেন খাবারের একটি ব্যাগ তোয়ালে দিয়ে জড়িয়ে নিয়ে আপনি নিজেও একটি কমপ্রেশন প্যাক তৈরি করে নিতে পারেন। ৪৮ ঘণ্টা পর একটি গরম কমপ্রেশন প্যাক ব্যবহার করা শুরু করুন। ● পাশ ফিরে ঘুমানোর সময় আপনার হাঁটুর নিচে একটি ছোট শক্ত কুশন রাখুন। অথবা চিত হয়ে শোয়ার সময় আপনার হাঁটু রাখার জন্য কয়েকটি শক্ত বালিশ দিয়ে রাখুন। এতে ব্যথার উপশম হতে পারে। ● প্রতিদিনের চলাফেরা ও আপনার কর্মক্ষেত্রের স্বাভাবিক কাজকর্ম একটি পরিমিত মাত্রায় বজায় রাখা জরুরি। ● কিছু স্ট্রেচিং এক্সারসাইজ করতে পারেন। এক পা পুরো মেলে দিয়ে আরেক পা মাটিতে রেখে বিছানার কিনারায় বসুন। কোমর না নেড়ে সামনের দিকে ঝুকে আপনার হ্যামস্ট্রিংগুলোকে (hamstrings) একটু চাপ দিন। ● ঘুমানোর ভঙ্গি ঠিক করুন। চিত হয়ে ঘুমালে হাঁটুর নিচে বালিশ নিয়ে ঘুমান। যারা পাশ ফিরে ঘুমান তারা হাঁটুর ফাঁকে একটি বালিশ রাখুন, যেন মেরুদণ্ড স্বাভাবিক অবস্থায় থাকে। উপুড় হয়ে না ঘুমানো ভাল কারন উপুড় হয়ে শুলে আপনার ঘাড় বেঁকে যায় যার ফলে আপনার মেরুদণ্ডের উপর বাড়তি চাপ পড়ে। ● আশাবাদি থাকুন। গবেষণায় দেখা গেছে আশাবাদি হলে দ্রুত সেরে ওঠার সম্ভাবনা বাড়ে। কমপক্ষে দু’সপ্তাহ নিজে চেষ্টায় যত্ন নেয়ার পরও পিঠ বা কোমরের ব্যাথা না কমলে ডাক্তার দেখান।